মেসি রোনালদো পরিসংখ্যান ২০২৩ কে সেরা দেখুন পরিসংখ্যান

4.9/5 - (34 votes)

২০০৫ সালের পর থেকে যারা ফুটবল দেখেন তাদের কাছে মেসি,রোনালদোর মানে আধুনিক আর গতির ফুটবল দেখে আসছেন। আজকের আপনারা জানতে পারবেন মেসি রোনালদো পরিসংখ্যান ২০২৩ মেসি এবং রোনালদো গত ১৯ বছর ধরে ব্যালন ডি’অর ভাগ করে নিয়েছে, কখনো মেসি জিতেছে বা কখনো রোনালদো, অধুনিক ফুটবলে আরলিং হালান্ড, নেইমার, এমবাপে, বেঞ্জেমা, কাকা, আরো অনেকেই আছেন কিন্ত মেসি রোনালদো মতো খেলা অন্য কেউ উপহার দিতে পারেনি।

মেসি আর্জেন্টিনার সুপারস্টার বর্তমান ক্লাব ইন্টার মিয়ামি খেলছেন। ২০২১ সালে বার্সেলোনা ছেড়ে পিএসজিতে যোগ দিয়েছিলেন কিন্তু প্রাপ্ত সম্মান না পাওয়ার কারনে অবশেষ আমেরিকা ক্লাব ইন্টার মিয়ামিতে যোগ দিয়েছে ২০২৩ সালে জুন থেকে। তিনি আর্জেন্টিনার হয়ে ফিফা বিশ্বকাপ, কোপা আমেরিকা জিতেছেন, অপরদিকে ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো পর্তুগাল জাতীয় ফুটবল দলের লিভিং লিজেন্ড যিনি ২০১৬ সালে ফ্রান্সকে হারিয়ে ইউরো চ্যাম্পিয়নশীপ জিতেছেন।

বর্তমানে রোনালদোর বয়স ৩৮ ( ৫ই ফেব্রুয়ারি ১৯৮৫ ) অপরদিকে লিওনেল মেসির ৩৬ ( ২৪শে জুন, ১৯৮৭ ) , কিন্ত এই বয়সেও তাদের খেলাই মেতে আছে গোটা বিশ্ব, পুরো বিশ্বে মেসি-রোনালদোর ভক্তদের ছড়াছড়ি অনেকে জানতে চান মেসি রোনালদো পরিসংখ্যান ২০২৩ কে সেরা।

মেসি রোনালদো পরিসংখ্যান

মেসি রোনালদো পরিসংখ্যান ২০২৩

মেসির রোনালদোর মধ্যে পরিসংখ্যান নিয়ে ফুটবল ভক্তদের আগ্রহের কমতি নেই, মেসি রোনালদো কে সেরা? কার বেশি গোল, কে কতবার উয়েফা চ্যাম্পিওয়নস লিগ জিতেছে, কে কতবার ব্যালন ডি’অর জিতেছে, জাতীয় দলের হয়ে কার গোল বেশি এইসব প্রশ্ন ছুড়াছুঁড়িতে মুখ থাকে ফেসবুক , টুইটার। নতুন মৌসুম সামনে রেখে আজ মেসি রোনালদো পরিসংখ্যান তুলে ধরবো।

মেসি রোনালদোর আন্তর্জাতিক গোল পরিসংখ্যান

মেসি রোনালদোর আন্তর্জাতিক গোল পরিসংখ্যান, মেসি ১৭ই আগোস্ট, ২০০৫ সালে আর্জেন্টিনার জাতীয় দলে জাইগা পান, এবং রোনালদো ২০শে আগোস্ট, ২০০৩ সালে পর্তুগাল দলে, আন্তর্জাতিক ফুটবলে রোনালদো মেসির থেকে বেশি ম্যাচ খেলেছে, মেসি ১৭৫টি আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছে অপরদিকে রোনালদো ২০০টি ম্যাচ খেলেছে। মেসি রোনালদো পরিসংখ্যান আন্তর্জাতিক গোল

  • মেসি ১৭৫ আন্তর্জাতিক ম্যাচে ১০৩ গোল করেছেন এবং গোল করার রেশও ছিলো ৫৮.৮৬%.
  • রোনালদো ২০০ ম্যাচ ম্যাচে ১২৩ গোল করেছেন এবং গোল করার রেশও ছিলো ৬১.৫%.

রোনালদো ফুটবল ইতিহাসের একমাত্র ফুটবলার যিনি আন্তর্জাতিক ফুটবলে ২০০ গোল করেছেন, এর আগে অন্য কোন ফুটবলার ২০০ গোল করতে পারেননি। মেসি রোনালদো পরিসংখ্যানে আন্তর্জাতিক গোলে রোনালদো এগিয়ে আছে।

এখানে মেসি রোনালদোর আন্তর্জাতিক গোল পরিসংখ্যানে রোনালদো এগিয়ে আছে এমনকি রোনালদো সর্ব কালের সেরা আন্তর্জাতিক গোলদাতা এবং সর্বচ্চ গোলদাতা।

See also  ফুটবলে কোন দলের সাপোর্টার বেশি ২০২৩ - ব্রাজিল নাকি আর্জেন্টিনা

#সর্বশেষ আপডেট: ০৮/০৮/২০২৩ 

আর্জেন্টিনার হয়ে মেসির আন্তর্জাতিক অর্জন

  • মেসি ১৭৫ আন্তর্জাতিক ম্যাচে ১০৩ গোল করেছেন
  • ১ বার ফিফা বিশ্বকাপ চ্যাম্পিয়ান ( ২০২২ কাতার বিশ্বকাপ )
  • ১ বার কনমেবল উয়েফা কাপ চ্যাম্পিয়ন ( আর্জেন্টিনা ২০২১/২২)
  • ১ বার অলেম্পিক মেডেল ( ২০০৮/০৯)
  • ১ বার কোপা আমেরিকা চ্যাম্পিয়ন ( ২০২০/২১ )
  • ৩ বার ফিফা টুর্নামেন্ট সেরা প্লেয়ার অ্যাওয়ার্ড ( ২০০৯, ২০১৯, ২০২২ )
  • ব্যালন ডি অর জয় ৭বার ( ২০০৯, ২০১০, ২০১১, ২০১২, ২০১৫, ২০১৯, ২০২১ )

পর্তুগালের হয়ে রোনালদোর আন্তর্জাতিক অর্জন

  • রোনালদো ২০০ ম্যাচে ১২৩ গোল করেছেন
  • ১০ বার ফুটবলার অফ দা ইয়ার
  • ৩ বার ফিফা টুর্নামেন্ট সেরা প্লেয়ার অ্যাওয়ার্ড ( ২০০৮, ২০১৬, ২০২৭ )
  • ব্যালন ডি অর জয় ৫বার ( ২০০৮, ২০১৩, ২০১৪, ২০১৬, ২০১৭ )
  • এক বার ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়ন ( Euro ২০১৬)

মেসি রোনালদোর বিশ্বকাপ পরিসংখ্যান

বিশ্বকাপের মঞ্চে মেসি এবং রোনালদো ৫টি করে বিশ্বকাপে অংশ নিয়েছে। নিচে মেসি রোনালদোর বিশ্বকাপ পরিসংখ্যান দুলে ধরা হল। 

২০০৬ বিশ্বকাপ ( প্রথম বিশ্বকাপ ) 

মেসি রোনালদো পরিসংখ্যান, মেসি এবং রোনালদো উভয়েই ৫ টা করে ফিফা বিশ্বকাপ খেলেছে, ২০০৬ বিশ্বকাপ তাদের প্রথম ফুটবল বিশ্বকাপ। ২০০৬ বিশ্বকাপে পর্তুগাল সেমিফাইলে হেরে যায় ফ্রান্সের কাছে, রোনালদো ৬ ম্যাচ খেলে ১ গোল করেছিলো। অপরদিকে মেসির আর্জেন্টিনা কোয়ার্টার ফাইনাল খেলে বিদাই সেই সেই আসর থেকে মেসি ২০০৬ বিশ্বকাপে ৩ ম্যাচ খেলে ১ গোল করতে পেরেছিলো।

২০১০ বিশ্বকাপ ( দ্বিতীয় বিশ্বকাপ ) 

২০১০ সালে ফিফা বিশ্বকাপ সাউথ আফ্রিকাতে আয়োজন করা হয়, সেই আসরে মেসির আর্জেন্টিনা কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে বাদ পড়ে, মেসি ২০১০ বিশ্বকাপে ৫ ম্যাচ খেললেও এক গোলও কররে পারেনি, অপরদিকে ২০১০ বিশ্বকাপে পর্তুগাল রাউন্ড অফ ১৬ থেকে বাদ পড়ে, রোনালদো ২০১০ বিশ্বকাপে ৪ ম্যাচ খেলে ১ গোল করেছিলো।

২০১৪ বিশ্বকাপ ( তৃতীয় বিশ্বকাপ ) 

২০১৪ বিশ্বকাপ মেসি রোনালদোর বিশ্বকাপ পরিসংখ্যান, ২০১৪ বিশ্বকাপে পর্তুগাল সব থেকে বাজে পারফমেন্স করে সেবার তারা গ্রুপ পর্ব হেরে বিদাই নেই আসর থেকে রোনালদো সেই আসরে ৩ ম্যাচ খেলে ১ গোল করেন। মেসির জন্য ২০১৪ বিশ্বকাপ ছিলো স্বপ্নের মতো, সেবার তারা ফাইনালে হেরে যায়,

ফুটবলের সর্বচ্চ আসরে মেসি সেবার ছিলো উজ্জ্বল, ৭ ম্যাচ খেলে ৪ গোল করে টিম আর্জেন্টিনাকে নিয়ে গেছিলো ফাইনালে কিন্ত শেষে স্বপ্নভঙ্গ হয় তাদের। আর ২০১৪ বিশ্বকাপে মেসি রোনালদোর পরিসংখ্যান বিচারে এগিয়ে ছিলো মেসি।

২০১৮ বিশ্বকাপ ( চতুর্থ বিশ্বকাপ ) 

২০১৮ বিশ্বকাপ পরিসংখ্যান মেসি রোনালদোর পারফমেন্স, বিশ্বকাপে উজ্জ্বল ছিলেন ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো রাউন্ড অফ ১৬ তে বাদ পড়ার আগে ৪ ম্যাচে ৪ গোল করে আশা জাগিয়েছিলেন কিন্ত দলের পরফমেন্স ভালো না থাকাই বেশি দুর যেতে পারেনি।

অপদিকে ২০১৮ বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনাও রাউন্ড অফ ১৬ থেকে বিদাই নেই, মেসি ৪ ম্যাচে ১ গোল করেন, সেবার ব্যাক্তিগত পয়ারফমেন্সে রোনালদো এগিয়ে ছিলেন। বলা বাহুল্য ২০১৬ ফিফা বিশ্বকাপে চ্যাম্পিয়ন হয় ফ্রান্স। 

  • মেসি ২০১৪ বিশ্বকাপে সেরা প্লেয়ার নির্বাচিত হয়।

২০২২ বিশ্বকাপ ( পঞ্চম বিশ্বকাপ ) সর্বশেষ বিশ্বকাপ 

২০২২ সালে কাতার বিশ্বকাপ ছিল দুই জনের জন্যই এক অন্য রকম বিশ্বকাপ ছিলো। ২০২২ ফিফা বিশ্বকাপ ছিলো মেসি এবং রোনালদোর শেষ বিশ্বকাপ। এক দিকে বিশ্বের সবচেয়ে ভাল প্লেয়ারের তালিকার সবার উপরে নাম থাকা মেসিকে যেন ২০২২ ফিফা বিশ্বকাপ তাকে সেই অর্জনও এনে দিয়েছে। ২০২২ কাতার বিশ্বকাপে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর সর্বমোট ৫টি ম্যাচ খেলার সুযোগ পেয়েছিলেন এবং মাত্র একটি গোল করেছিলেন। অন্যদিকে লিওনেল মেসি ২০২২ কাতার বিশ্বকাপে সর্বমোট ৭ ম্যাচ খেলে ৭ গোলের পাশা পাশি অর্জন করেছেন ফিফা চ্যাম্পিয়ান। ব্যাক্তিগত ভাবে হয়েছেন ২০২২ ফিফা বিশ্বকাপের সেরা খেলোয়াড়। এদিক থেকে লিওনেল মেসি এগিয়ে থাকবে। 

See also  বিশ্বের সেরা ফুটবলার কে

মেসি রোনালদো ক্লাব ফুটবল পরিসংখ্যান

মেসি রোনালদো ক্লাব ফুটবল পরিসংখ্যান বা তাদের যে প্রতিযোগিতা সেটা ১৮ বছর ধরে মাতিয়ে রেখেছে গোটা ফুটবল বিশ্ব প্রাই দুই যুগ ধরে ভাগ করে নিয়েছেন ফুটবল সর্বচ্চ অ্যাওয়ার্ড ব্যালন ডি-অর, কখনো মেসি আবার কখনো রোনালদো, পুরো ফুটবল বিশ্ব দুই ভাগে বিভক্ত।

মেসি ( বার্সেলোনা ২০০৪ – ২০২১ )

মেসি রোনালদো পরিসংখ্যান হিসাব করতে মেসির ক্লাব ফুটবল ক্যারিয়ারে নজর দিতে হবে। ক্লাব ফুটবলে প্রফেশনাল ভাবে শুরু করেন ২০০৪ সালে, স্প্যানিশ ক্লাব বার্সেলোনার এ-দল এবং বি-দলে খেলার পর ২০০৪ সালে প্রথম বার্সেলোনার মূল দলে খেলার সুযোগ পান এরপর আর পিছনে তাকাতে হয়নি ২০০৪ সাল থেকে ২০২১ টানা ১৭ সিজন খেলেছেন বার্সেলোনার হয়ে।

এই ১৭ বছর বার্সেলোনাতে তিনি ৭৭৮ ম্যাচ খেলে ৬৭২ গোল করেছেন যেটা ক্লাব বার্সেলোনার ইতিহাসে সর্বোচ্চ গোলোদাতা মেসি, এর আগে বার্সেলোনাতে খেলে কেউ এতো গোল করতে পারেনি। এছাড়াও মেসি এসিস্ট করার দিক থেকেও এগিয়ে, তিনি ৬ বার বেস্ট এসিস্ট প্রভাইডার নির্বাচিত হয়েছেন।

তিনি বার্সেলোনার হয়ে সর্বোচ্চ লিগ টাইটেল জিতেছেন, ১০ বার লা-লিগা টাইটেল জিতেছেন যেটাকে স্প্যানিশ চ্যাম্পিয়ন বল হয়। এছাড়াও ৩ বার উয়েফা সুপারকাপ জিতেছেন, এবং ৭ বার স্প্যানিশ কাপ জিতেছেন, এছাড়াও ৮ বার স্প্যানিশ সুপারকাপ জিতেছেন ।

মেসির ক্লাব ফুটবল পরিসংখ্যান ( ২০০৪ – ২০২২ )

  • ক্লাব বার্সেলোনার হয়ে সর্বচ্চ গোলদাতা ৭৭৮ ম্যাচ খেলে ৬৭২ গোল করেছেন
  • ১০ বার লা-লিগা টাইটেল জিতেছেন ( ক্লাব বার্সেলোনা)
  • ৩ বার উয়েফা সুপারকাপ জিতেছেন ( ক্লাব বার্সেলোনা )
  • ৭ বার স্প্যানিশ কাপ জিতেছেন ( ক্লাব বার্সেলোনা)
  • ৮ বার স্প্যানিশ সুপারকাপ জিতেছেন । ( ক্লাব বার্সেলোনা)
  • ৩ বার ফিফা ক্লাব ওয়ার্ল্ডকাপ উইনার ( ক্লাব বার্সেলোনা)
  • ৪ বার উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগ জিতেছেন। ( ক্লাব বার্সেলোনা)
  • ১ বার ফ্রান্স চ্যাম্পিয়ন ( ক্লাব পিএসজি)
  • ১ বার ফ্রান্স সুপারকাপ জিতেছেন ( ক্লাব পিএসজি)

ক্লাব ফুটবলে মেসির ব্যাক্তগত অর্জন বার্সেলোনার হয়ে

  • ২ বার ফিফা বেস্ট পুরুষ ফুটবলার অ্যাওয়ার্ড ( 2x the best fifa men’s player) ( ক্লাব বার্সেলোনা)
  • ৭ বার ব্যালন ডি’অর জিতেছেন ( ক্লাব বার্সেলোনা)
  • ৩ বার উয়েফা ইউরোপিয়ান বেস্ট প্লেয়ার অ্যাওয়ার্ড ( ক্লাব বার্সেলোনা)
  • ৫ বার গোল্ডেন বুট জিতেছেন ( ক্লাব বার্সেলোনা)

রোনালদো ক্লাব ফুটবল পরিসংখ্যান ( ২০২২ – ২২)

ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো ২০০২ সালে পর্তুগিজ ক্লাব স্পোটিং সিপি-র হয়ে তার ক্লাব ফুটবল ক্যারিয়ার শুরু করেন, এরপর ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে আসেন ২০০৩ সালে সেখানে তার ফুটবল ক্যারিয়ার বদলে যায় পরিসংখ্যানে সামন তালে টেক্কা দিয়েছেন মেসিকে, ২০০২-০৯ এই ৬ মৌসুমে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের হয়ে ১৯৬ ম্যাচ খেলে ৯৬ গোল করেন, প্রিমিয়ার লিগ, উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগ শ অসংখ্যা টাইটেল জেতেন তিনি।

See also  এশিয়া কাপ কে কতবার নিয়েছে | এশিয়া কাপ চ্যাম্পিয়ন লিস্ট

৬ বছর ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে থাকার পর সেখান থেকে পাড়ি দেন স্প্যানিশ ক্লাব রিয়াল মদ্রিদে, ২০০৯ থেকে ২০১৮ খেলেছেন রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে একই সাথে করেছেন অসংখ্যা সব রেকর্ড, রিয়াল মাদ্রিদের ইতিহাসের সর্বকালের সেরা গোলদাতা রোনালদো, ২৯১ ম্যাচ খেলে ৩১১ গোল করেছেন তিনি। ২ বার স্প্যানিশ চ্যাম্পিয়ন ৪ বার উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগ, ৩ বার উয়েফা সুপারকাপ সহ ব্যাক্তিগত অনেক অ্যাওয়ার্ড অর্জন করেছেন তিনি।

২০১৮ তে ক্লাব বলতে ইতালির ক্লাব রেকর্ড দামে জুভেন্টাসে পাড়ি দেন, সেখানেও ১ বার ইতালিয়ান কাপ জিতেছেন, ২ বার ইতালিয়ান সুপারকাপ জিতেছেন সেখান থেকে ২০২১ সালে আবার ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে যোগ দেন। তবে সর্বশেষ ২০২৩ সালে সৌদি আরবের ক্লাব আল নাসরে খেলছেন রোনালদো। 

রোনালদো ক্লাব ফুটবল পরিসংখ্যান

  • ৩ বার ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ চ্যাম্পিয়ন ( ক্লাব ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড )
  • ১ বার ইংলিশ এফ-এ কাপ জিতেছেন ( ক্লাব ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড )
  • ১ বার উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগ জিতেছে ( ক্লাব ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড )
  • ২বার ইংলিশ লিগ কাপ জিতেছেন ( ক্লাব ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড )
  • ২ বার ইংলিশ সুপারকাপ জিতেছেন ( ক্লাব ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড )

মেসি রোনালদো পরিসংখ্যান ক্লাব ফুটবল

  • ২ বার স্প্যানিশ চ্যাম্পিয়ন ( ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ )
  • ৪ বার চ্যাম্পিয়ন লিগ জিতেছেন ( ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ )
  • ৩ বার উয়েফা সুপারকাপ জিতেছেন ( ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ )
  • বার স্প্যানিশ সুপার কাপ চ্যাম্পিয়ন ( ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ )

মেসি রোনালদো পরিসংখ্যান ক্লাব ফুটবল

  • ১ বার ইতালিয়ান কাপ জিতেছেন ( ক্লাব জুভেন্টাস )
  • ২ বার ইতালিয়ান সুপারকাপ জিতেছেন ( ক্লাব জুভেন্টাস )
  • ২বার ইতালিয়ান চ্যাম্পিয়ন ( ক্লাব জুভেন্টাস )
  • ১বার পর্তুগিজ সুপারকাপ জিতেছেন ( ক্লাব স্পোটিং সিপি )

ক্লাব ফুটবল থেকে রোনারদোর ব্যাক্তিগত অর্জন ও পরিসংখ্যান

  • ৬ বার প্লেয়ার অফ দি ইয়ার অ্যাওয়ার্ড জিতেছেন, এর মধ্যে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে থাকতে ৩বার, রিয়াল মাদ্রিদে থাকতে ২ বার ও জুভেন্টেসে থাকতে ১ বার ।
  • ২ বার TM Player of the season ( ইতালি এবং স্পেন )
  • ৪ বার ফিফা ক্লাব ওয়ার্ল্ডকাপ জিতেছেন, ( রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে ৩ বার এবং ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের হয়ে ১ বার )
  • ২ বার ফিফা বেস্ট পুরুষ ফুটবলার অ্যাওয়ার্ড ( 2x the best fifa men’s player)
  • ৫ বার ব্যালন ডি অর জিতেছেন
  • ৪ বার উয়েফা ইউরোপিয়ান বেস্ট প্লেয়ার অ্যাওয়ার্ড
  • ১ বার ফিফা পুস্কা অ্যাওয়ার্ড

মেসি রোনালদো চ্যাম্পিয়নস লিগ পরিসংখ্যান

মেসি রোনালদো পরিসংখ্যান, ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো ২০০৩ সাল থেকে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন লিগ খেলছেন অপরদিকে মেসি ২০০৫ সাল থেকে, ক্লাব ফুটবলে সেরা হওয়ার লড়াইটা চ্যাম্পিয়নস লিগে হয়, ইংলিশ লিগ, স্প্যানিশ লিগ, ইতালিয়ান লিগ, ফ্রান্স লিগ, পর্তুগিজ লিগ, জার্মান লিগের ক্লাব গুলোর কে ইউরোপের সেরা ক্লাব সেটা নির্বাচিত হয় উয়েফা চ্যাম্পিয়ন লিগের মাধ্যমে।

সারা বিশ্বের ফুটবল ভক্তরা অপেক্ষা করে প্রতি বছর চ্যাম্পিয়নস লিগের মৌসুমের জন্য, আর এখানেই সফল ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো, উয়েফা চ্যাম্পিয়ন লিগের ইতিহাসে রোনালদো সর্বচ্চ গোলদাতা, তিনি ১৮৩ ম্যাচে ১৪১ গোল করে সবার উপরে আছেন সাথে ৫ বার চ্যাম্পিয়নস লিগও জিতেছেন তিনি।

এর পরেই লিওনেল মেসির অবস্থান, মেসি ১৫৬ ম্যাচ খেলে ১২৫ গোল করেছেন এবং ৪ বার উয়েফা চ্যাম্পিয়ন লিগ জিতেছেন, তিনি ক্লাব বার্সেলোনাতেই এই চারবার চ্যাম্পিয়নস লিগ জিতেছেন। মেসি রোনালদো পরিসংখ্যান বা মেসি রোনালদোর চ্যাম্পিয়ন লিগ পরিসংখ্যানে এগিয়ে আছেন রোনালদো।

খেলার খবর জানতে ভিজিট করুন prokito.com

  1. প্রশ্নঃ মেসি রোনালদো কে সেরা ?

    উত্তরঃ মেসি রোনালদোর পরিসংখ্যান বলে তারা দুইজনেই সেরা তবে এদের মধ্যে কিছু দিকে এগিয়ে আছে রোনালদো কিছু অর্জনে এগিয়ে আছে মেসি

  2. প্রশ্নঃ মেসি কইবার ব্যালন ডি’অর জিতেছেন?

    উত্তরঃ মেসি ৭ বার ব্যালন ডি’অর জিতেছেন

  3. প্রশ্নঃ রোনালদো কইবার ব্যালন ডি’অর জিতেছেন?

    উত্তরঃ রোনালদো ৫ বার ব্যালন ডি’অর জিতেছেন?

  4. প্রশ্নঃ মেসি রোনালদো কার গোল সংখ্যা বেশি ?

    উত্তরঃ মেসি এবং রোনালদোর মধ্যে রোনালদোর গোল সংখ্যা বেশি।
    – মেসি ১৬২ আন্তর্জাতিক ম্যাচে ৮৬ গোল করেছেন
    – রোনালদো ১৮৯ ম্যাচ ম্যাচে ১১৭ গোল করেছেন, এছাড়াও

Leave a comment